عن أبي بن كعب -رضي الله عنه- قال: كان رجل من الأنصار لا أعلم أحدا أبعد من المسجد منه، وكانت لا تخطئه صلاة، فقيل له: لو اشتريت حمارا لتركبه في الظلماء وفي الرمضاء، قال: ما يسرني أن منزلي إلى جنب المسجد، إني أريد أن يكتب لي ممشاي إلى المسجد، ورجوعي إذا رجعت إلى أهلي. فقال رسول الله -صلى الله عليه وسلم-: «قد جمع الله لك ذلك كله»
[صحيح.] - [رواه مسلم.]
المزيــد ...

উবাই ইবন কা‘ব রাদিয়াল্লাহু আনহু থেকে মারফু‘ হিসেবে বর্ণিত, আনসারী এক লোক ছিলেন, আমি এমন কাউকে জানি না যে মসজিদ থেকে তার চেয়ে দূরে অবস্থান করত। কিন্তু কোনো সালাত তার ছুটত না। তাকে বলা হলো, তুমি যদি একটি গাধা কিনে নাও এবং তার পিঠে আরোহন করে রাতের অন্ধকারে এবং রোদের মধ্যে সালাত আদায় করতে আসো তাহলে তো বেশ ভালোই হয়। সে বললো, আমার বাড়ি মসজিদের পাশেই হোক তা আমি পছন্দ করি না। আমি চাই মসজিদে হেঁটে আসা এবং মসজিদ থেকে আমার পরিবার-পরিজনের কাছে যাওয়ার প্রতিটি পদক্ষেপ আমার জন্য লিপিবদ্ধ হোক। রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন, “আল্লাহ তোমার জন্য এসব সাওয়াবের সবই একত্রিত করে রেখেছেন।”

ব্যাখ্যা

সাওয়াবের প্রত্যাশায় মসজিদে যাওয়া-আসা করার মাধ্যমে মানুষ যদি আল্লাহর কাছে বিনিময় প্রত্যাশা করে তাহলে তাকে এর বিনিময়ে সাওয়াব দান করা হবে। লেখক এখানে যে হাদীসটি উল্লেখ করেছেন, তাতে এমন এক ব্যক্তির ঘটনা রয়েছে, যার বাড়ি মসজিদ থেকে অনেক দূরে ছিলো। পায়ে হেঁটে মসজিদের দিকে আগমন করা ও মসজিদ থেকে ফিরে আসার মাধ্যমে সে আল্লাহর কাছে সাওয়াব পাওয়ার আশা করত। কতিপয় লোক তাকে বলল, তুমি যদি একটি গাধা কিনে নাও এবং তার পিঠে আরোহন করে রাতের অন্ধকারে এবং রোদের মধ্যে সালাত আদায় করতে আসো তাহলে তো বেশ ভালোই হয়। অর্থাৎ রাতের অন্ধকারে ইশা ও ফজরের সালাত আদায় করার জন্য আসার সময় অথবা গরমের দিন যোহরের সালাত আদায় করার জন্য আসার সময় গাধার উপর আরোহন করে আসতে তাহলে ভালো হতো। বিশেষ করে হিজায অঞ্চলের আবহাওয়া যেহেতু অত্যন্ত গরম, তাই সেখানে এর প্রয়োজন পড়ে। তখন সাহাবী লোকটি বললো, আমার বাড়ি মসজিদের পাশে হোক তা আমি পছন্দ করি না। অর্থাৎ তার বাড়ি মসজিদ থেকে দূরে থাকুক, এটিই সে পছন্দ করে। সে পায়ে হেঁটে মসজিদে আসা যাওয়া করবে। তাই তার বাড়ি মসজিদের কাছে থাকা তার কাছে পছন্দনীয় নয়। কেননা তার বাড়ি মসজিদের কাছে হলে মসজিদে আসা যাওয়ার প্রতিটি পদক্ষেপের সাওয়াব তার জন্য লিপিবদ্ধ হবে না; অথচ সে তো আল্লাহ তা‘আলার কাছে মসজিদে আসা যাওয়ার প্রত্যেক পদক্ষেপের বিনিময়ে সাওয়াব প্রত্যাশা করে। নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন, “আল্লাহ তোমার জন্য এসব সাওয়াবই একত্রিত করে রেখেছেন।” অর্থাৎ মসজিদে আসা যাওয়ার যে সাওয়াবের আশা তুমি করো, আল্লাহ তা‘আলা তোমাকে তা দিবেন। অন্য বর্ণনায় এসেছে, “তুমি যা আশা করছ তোমার জন্য তাই লিপিবদ্ধ হবে।”

অনুবাদ: ইংরেজি ফরাসি স্প্যানিশ তার্কিশ উর্দু ইন্দোনেশিয়ান বসনিয়ান রুশিয়ান চাইনিজ
অনুবাদ প্রদর্শন